আপডেট : ২৬ নভেম্বর, ২০১৬ ১৯:৩৩

খুলনার টার্গেট ১৫৪ রান

অনলাইন ডেস্ক
খুলনার টার্গেট ১৫৪ রান

দলের বিপর্যয়ের পরও ব্যাট হাতে একাই রাজশাহী কিংসকে টেনেছেন অধিনায়ক ড্যরেন স্যামি। তার দুর্দান্ত অর্ধশতকের ওপর ভর করেই খুলনা টাইটান্সের বিপক্ষে নির্ধারিত ওভার শেষে আট উইকেট হারিয়ে ১৫৪ রান করেছে রাজশাহী। জয়ের জন্য মাহমুদুল্লার খুলনার করতে হবে ১৫৫ রান।

এদিন অপরাজিত থেকে মাত্র ৩৪ বলে চারটি চার ও পাঁচটি ছক্কায় ৭১ রান করেন স্যামি। এছাড়া দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২১ রান আসে জুনায়েদ সিদ্দিকীর ব্যাট থেকে। খুলনার হয়ে সর্বোচ্চ দুটি করে উইকেট নেন কেভিন কুপার ও শফিউল ইসলাম।

দলীয় পঞ্চম ওভারে ওপেনার মুমিনুল হককে হারায় রাজশাহী। খুলনা দলপতি মাহমুদুল্লাহ ফেরান তাকে। ১২ বলে সমান ১২ রান করেন মুমিনুল। পরের ওভারেই আরেক ওপেনার জুনায়েদ সিদ্দিকীকে ফেরান পেসার শফিউল ইসলাম। জুনায়েদের ব্যাট থেকে আসে ২১ রান।

দশম ওভারের দ্বিতীয় বলে দলের হার্ডহিটার ব্যাটসম্যান সাব্বির রহমানকে হারায় রাজশাহী। ব্যক্তিগত ১৬ রানে তাকে এলবিডব্লিউর ফাঁদে ফেলে ফেরান খুলনার স্পিনার মোশাররফ হোসেন। একই ওভারে দলীয় ৫০ রান আসে রাজশাহীর। তবে ১১তম ওভারের শেষ বলে রাজশাহী উমর আকমলের উইকেট হারিয়ে বিপাকে পড়ে। এলবিডব্লিউ করে তাকে প্যাভিলিওনে পাঠান কেভিন কুপার।

১৫তম ওভারে ব্যক্তিগত ১৬ রানে সামিত প্যাটেলকে ফেরান কেভিন কুপার। একই ওভারে রান আউটের ফাঁদে পড়েন মেহেদি হাসান মিরাজ। তবে ১৭তম ওভারে দলীয় শতক পূর্ণ করে রাজশাহী। কিন্তু নতুন ব্যাটসম্যান ফরহাদ রেজাকে ফিরিয়ে দেন শফিউল। আর ইনিংসে শেষ বলে রান আউট হন আবুল হোসেন।

শেরে-ই-বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) ২৮তম ম্যাচে খুলনা টাইটান্সের বিপক্ষে টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন রাজশাহী কিংসের অধিনায়ক ড্যারেন স্যামি। তবে এ ম্যাচ জিতে নিজেদের শীর্ষস্থান আরও মজবুত করার সুযোগ থাকছে খুলনার সামনে।

টুর্নামেন্টে এখন পর্যন্ত আট ম্যাচে ছয় জয় ও দুই হারে ১২ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলের শীর্ষে মাহমুদুল্লার দল। শেষ ম্যাচে দলটি বরিশাল বুলসকে হারিয়ে সবার ওপরে জায়গা করে নেয়। ফলে এ ম্যাচ জয়ে আরও ভালো অবস্থানে নিয়ে যাবে দলটিকে।

অন্যদিকে রাজশাহীর অবস্থান খুব একটা সুবিধের না। সাত ম্যাচে তিন জয় ও চার হারে ছয় পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের পাঁচে রয়েছে স্যামিরা। শেষ ম্যাচে অবশ্য দলটি শক্তিশালী রংপুর রাইডার্সকে হারিয়ে আসরে টিকে থাকার সংকেত দেয়।

চলতি আসরে দু’দলের এটি দ্বিতীয় সাক্ষাত। প্রথম দেখায় মিরাজদের মাত্র তিন রানে হারিয়েছিল মাহমুদুল্লার খুলনা।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/রাসেল

উপরে